ক্যান্সার রোগীদের ক্ষেত্রে কোভিড-১৯ সংক্রমণ কতোটা ঝুঁকির কারণ হয়ে উঠতে পারে?

Reading Time: 4 minutes

শুভময় ব্যানার্জী, নিউক্র্যাড হেলথ এর প্রতিবেদন, নভেম্বর ১২, ২০২০

বিশ্বব্যাপী ঘটে চলা কোভিড-১৯ প্যান্ডেমিকে ইতিমধ্যেই প্রাণ হারিয়েছেন লক্ষ লক্ষ মানুষ। পরিসংখ্যান অনুযায়ী, নভেল করোনাভাইরাস আক্রান্ত মানুষের মধ্যে শতকরা ৬ শতাংশ ক্যান্সার রোগীর মৃত্যু হয়েছে। কিন্তু প্রকৃতপক্ষে, এই মৃত্যু “ক্যান্সার কো-মরবিডিটি” এর কারণে ঘটেছে না SARS-CoV-2 ক্যান্সার উপসর্গ বাড়িয়ে তুলছে সেটা নিয়ে বিজ্ঞানী মহলে চলছে নানা বিতর্ক, হাইপোথিসিস এবং গবেষণা। এই বিষয়ে বিস্তারিত আলোচনার আগে আমরা জেনে নেবো, ভাইরাস সংক্রমণ ও ক্যান্সারের মধ্যে বিশেষ সম্পর্কের কথা।

ভাইরাস সংক্রমণ কি ক্যান্সার সৃষ্টি করতে পারে?

বেশ কিছু ভাইরাসের সংক্রমণে ক্যান্সার হতে পারে। এই ধরণের ভাইরাসকে “টিউমার ভাইরাস” বলে। যেমন- ইপস্টেইন-বার ভাইরাস (বি-সেল ক্যান্সার), ক্যাপোসি সারকোমা অ্যাসোসিয়েটেড হারপিস ভাইরাস (ত্বক ও বি-সেল ক্যান্সার), হিউম্যান প্যাপিলোমা ভাইরাস (জরায়ুর ক্যান্সার), হেপাটাইটিস-সি ভাইরাস (লিভার ক্যান্সার), হিউম্যান টি-লিম্ফোট্রপিক ভাইরাস-১ (ব্লাড ক্যান্সার) ইত্যাদি। গবেষণায় দেখা গেছে, এই ভাইরাসগুলি দেহকোষে প্রবেশ করে বিভিন্ন কোষীয় প্রোটিন, ট্রান্সক্রিপশন ফ্যাক্টর ইত্যাদির কাজকে ব্যাহৃত করে কোষবিভাজন অস্বাভাবিক বাড়িয়ে দেয়। ফলে দেখা দেয় ক্যান্সার। কিছু বিশেষ অবস্থায় যেমন, এইডস হলে বা কোন জটিল অসুখে শরীরের ইমিউনিটি কমে গেলে অথবা কোন অঙ্গের ট্রান্সপ্লান্টের সময়ে টিউমার ভাইরাসের সংক্রমণ হতে পারে। বেশিরভাগ ক্ষেত্রেই টিউমার ভাইরাস শরীরে মেটাস্ট্যাটিক ক্যান্সার তৈরী করতে পারে।

নিউক্র্যাড হেলথ নিয়ে আসছে নিউক্র্যাড হেলথ হাব – বাংলায় এক নতুন স্টার্ট আপ ,
এক বাঙালি বিজ্ঞানীর হাত ধরে।নিউক্র্যাড হেলথ হাব এর এন্ট্রেপ্রেনিউরশিপ প্রোগ্রাম এ কোনো পুঁজি না লাগিয়ে অংশ গ্রহণ করতে অথবা জানতে হোয়াট’স আপ করুন +19175663401

করোনাভাইরাস সংক্রমণ এবং ক্যান্সার:

২০১৫ সালের পরিসংখ্যান অনুযায়ী, মিডল ইস্ট রেস্পিরেটরি সিনড্রোম ভাইরাস (MERS) প্যান্ডেমিকের সময়ে এই ভাইরাসে আক্রান্ত ক্যান্সার রোগীদের মৃত্যুর হার ছিল শতকরা ৮৪ শতাংশ! বিজ্ঞানীরা ক্যান্সার রোগীদের নিয়ে চিন্তিত ছিলেন বর্তমান নভেল করোনাভাইরাস প্যান্ডেমিকের কারণে। আশার কথা এবারের প্যান্ডেমিকে সামগ্রিক ভাবে ক্যান্সার রোগীদের মৃত্যুর হার বেশ কম। অর্থাৎ, বিভিন্ন দেশ থেকে মিশ্র রিপোর্ট পাওয়া যাচ্ছে। কিছু ক্ষেত্রে আশঙ্কা থেকে যাচ্ছে, যেমন যাদের ফুসফুস, গলা এবং ন্যাসো-ফেরিঞ্জিয়াল ক্যান্সার আছে তাদের SARS-CoV-2 সংক্রমণে অসুস্থতা আশঙ্কাজনক অবস্থায় পৌঁছতে পারে। এছাড়া, প্যান্ডেমিকের কারণে ক্যান্সার রোগীদের চিকিৎসা, প্রয়োজনীয় পরীক্ষা, কেমোথেরাপি, ক্যান্সার সার্জারি ইত্যাদি কাজে বহুল পরিমানে ব্যাঘাত ঘটছে, সেগুলিও মৃত্যুর পরোক্ষ কারণ হিসাবে ধরা যায়। তবে কোভিড-১৯ আক্রান্ত ক্যান্সার রোগীর কেমোথেরাপি চালানো নিয়ে চিকিৎসকরা কিছুটা দ্বিধাগ্রস্ত। কিছুক্ষেত্রে করোনা রোগীর অসুস্থতা এমন পর্যায়ে পৌঁছচ্ছে, যেখানে প্রয়োজনীয় কেমোথেরাপি চিকিৎসকরা বন্ধ করতে বাধ্য হচ্ছেন আবার কিছু রিপোর্ট বলছে, কোভিড-১৯ আক্রান্ত ক্যান্সার রোগীর কেমো নিতে কোনো অসুবিধা নেই। অনেকেই প্রশ্ন তুলতে পারেন, ক্যান্সার রোগীর কোভিড-১৯ হলে ঝুঁকি কেন বেশী? সেই বিষয়ে বৈজ্ঞানিকরা ব্যাখ্যা দিয়েছেন, নভেল করোনাভাইরাস কোষের অ্যাঞ্জিওটেনসিন কনভার্টিং এনজাইম-২ (ACE-2) রিসেপ্টারের সাহায্যে কোষের ভিতরে প্রবেশ করে। অগ্ন্যাশয়, জরায়ু ও বৃক্কের ক্যান্সারে ACE-2 রিসেপ্টর অনেক বেশী পরিমানে তৈরী হয়, ফলে SARS-CoV-2 সহজেই সংক্রমণ ঘটাতে পারে। আবার আশ্চর্যের ব্যাপার, ব্রেস্ট, লিভার এবং প্রস্টেট ক্যান্সারে ACE-2 রিসেপ্টর কম তৈরী হয় কিন্ত সেই ক্ষেত্রে কোভিড-১৯ কতোটা জটিলতা সৃষ্টি করে সেই বিষয়ে সুস্পষ্ট তথ্য-প্রমান এখনো পাওয়া যায় নি। প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, ক্যান্সার রোগীদের শরীরে বেশিরভাগ ক্ষেত্রে প্রো-ইনফ্লেমেটরি সাইটোকাইনের (যেমন-IL-6, IL-17, TGF-beta, TNF-alpha ইত্যাদি) পরিমান বেড়ে থাকে। এই অবস্থায় SARS-CoV-2 সংক্রমণে রোগীর “সাইটোকাইন স্টর্ম” উপসর্গ দেখা দিতে পারে, যার ফলে শরীরের বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ অঙ্গ বিকল হয়ে মৃত্যু পর্যন্ত হতে পারে।

https://youtube.com/channel/UCkVXzA6E_SvkvaSUdbd73hg

 কোভিড-১৯ আক্রান্ত ক্যান্সার রোগীর চিকিৎসা পদ্ধতি: 

চিকিৎসক ও বিজ্ঞানীদের মতে, কোভিড-১৯ আক্রান্ত ক্যান্সার রোগীর অ্যান্টি-ক্যান্সার থেরাপি এবং অ্যান্টি-ভাইরাল থেরাপি একই সাথে চলতে পারে। তবে এই ক্ষেত্রে কিছু আধুনিক চিকিৎসা পদ্ধতির সাহায্য নেওয়া হচ্ছে, যেমন-

১. মনোক্লোনাল অ্যান্টিবডি ককটেল ভ্যাকসিন:

SARS-CoV-2 ভাইরাসের বিভিন্ন এপিটোপকে দ্রুত  টার্গেট করতে পারে এই ধরণের ভ্যাকসিন। 

২. রিকম্বিনেন্ট ACE-2 রিসেপ্টর কনজুগেটেড ন্যানোপার্টিকল থেরাপি:

সাধারণত, কোন ড্রাগের ‘বায়ো অ্যাভেলেবিলিটি’ বাড়াতে সাহায্য করে ন্যানোপার্টিকল টেকনোলজি। এই ক্ষেত্রে, ACE-2 রিসেপ্টর কনজুগেটেড ন্যানোপার্টিকল ল্যাবরেটরিতে তৈরী করা হয় যা SARS-CoV-2 ভাইরাসের স্পাইক প্রোটিনের সাথে যুক্ত হয়ে ক্যান্সার রোগীর দেহে সংক্রমণকে প্রতিহত করে। 

৩. প্রো-ইনফ্লেমেটরি সাইটোকাইন ইনহিবিটর থেরাপি:

বিভিন্ন সাইটোকাইন ইনহিবিটারের সাহায্যে প্রো-ইনফ্লেমেটরি সাইটোকাইনগুলিকে নিষ্ক্রিয় করে ক্যান্সার রোগীর শরীরে প্রদাহ কমিয়ে আনা হয়।

বর্তমান পরিস্থিতিতে, ক্যান্সার ও কোভিড-১৯ চিকিৎসা এক সাথে করা চিকিৎসকদের কাছে একটি চ্যালেঞ্জের বিষয়। SARS-CoV-2 দেহের স্বাভাবিক কোষ ও ক্যান্সার কোষকে কিভাবে সংক্রমণ করে বা এই দুই কোষের সংক্রমন মাত্রায় কোন বিশেষ তফাৎ আছে কিনা তা নিয়ে এখন গভীর গবেষণার প্রয়োজন। এছাড়া, একই অ্যান্টি-ভাইরাল ড্রাগ ক্যান্সার বিহীন এবং একসাথে ক্যান্সার যুক্ত মানুষের শরীরে কিভাবে কাজ করবে তা এখনো অনেকাংশেই অজানা। মৌলিক ক্যান্সার গবেষণা হয়তো নিকট ভবিষ্যতে এইসব প্রশ্নের উত্তর দিতে পারবে।

N:B -Consult with doctors for your medical need. This is an awareness campaign only.

বিজ্ঞাপনের জন্য যোগাযোগ করুন neucradhealth@gmail.com

তথ্যসূত্রঃ 

  1. Gosain R, Abdou Y, Singh A, Rana N, Puzanov I, Ernstoff MS. COVID-19 and Cancer: a Comprehensive Review. Curr Oncol Rep. 2020;22(5):53. Published 2020 May 8. doi:10.1007/s11912-020-00934-7
  2. ElGohary GM, Hashmi S, Styczynski J, et al. The risk and prognosis of COVID-19 infection in cancer patients: A systematic review and meta-analysis [published online ahead of print, 2020 Jul 30]. Hematol Oncol Stem Cell Ther. 2020;S1658-3876(20)30122-9. doi:10.1016/j.hemonc.2020.07.005
  3. Al-Quteimat OM, Amer AM. The Impact of the COVID-19 Pandemic on Cancer Patients. Am J Clin Oncol. 2020 Jun;43(6):452-455. doi: 10.1097/COC.0000000000000712. PMID: 32304435; PMCID: PMC7188063.
  4. Jyotsana N, King MR. The Impact of COVID-19 on Cancer Risk and Treatment [published online ahead of print, 2020 Jun 29]. Cell Mol Bioeng. 2020;13(4):1-7. doi:10.1007/s12195-020-00630-3
  5. Curigliano G. Cancer Patients and Risk of Mortality for COVID-19. Cancer Cell. 2020;38(2):161-163. doi:10.1016/j.ccell.2020.07.006
  6. Geisslinger F, Vollmar AM, Bartel K. Cancer Patients Have a Higher Risk Regarding COVID-19 – and Vice Versa?. Pharmaceuticals (Basel). 2020;13(7):143. Published 2020 Jul 6. doi:10.3390/ph13070143
  7. de Joode K, Dumoulin DW, Engelen V, et al. Impact of the coronavirus disease 2019 pandemic on cancer treatment: the patients’ perspective. Eur J Cancer. 2020;136:132-139. doi:10.1016/j.ejca.2020.06.019
  8. Liao JB. Viruses and human cancer. Yale J Biol Med. 2006;79(3-4):115-122.
  9. Schiller JT, Lowy DR. Virus infection and human cancer: an overview. Recent Results Cancer Res. 2014;193:1-10. doi: 10.1007/978-3-642-38965-8_1. PMID: 24008290.

Write your comments

%d bloggers like this: